logo

orangebd logo
পাকিস্তানিরা আমাদের চাপে ফেলে দিয়েছিল : কোহলি
সংবাদ স্পোর্টস ডেস্ক

পাকিস্তানি বোলাররা অতিমাত্রায় চাপে ফেলে দেয়ায় চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে ১৮০ রানে হারতে হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলি। টস জিতে কোহলি পাকিস্তানিদের প্রথমে ব্যাটিংয়ের আমন্ত্রণ জানিয়ে সবাইকে বিস্মিত করেন। সুযোগটি কাজে লাগিয়ে ফখর জামানের সেঞ্চুরিতে ভর করে পাকিস্তান চার উইকেটের বিনিময়ে ৩৩৮ রান করতে সক্ষম হয়। ওই লক্ষ্য অতিক্রম করে শিরোপা ধরে রাখতে হলে ভারতকে নতুন রেকর্ড গড়তে হতো। বিশ্বসেরা ব্যাটিং লাইনআপ দিয়ে হয়তো সেটিও অসাধ্য কোন বিষয় ছিল না ভারতীয়দের জন্য। কিন্তু মোহাম্মদ আমের যখন ৩৩ রানের মধ্যে তাদের তিনটি উইকেট ফিরিয়ে দেন তখন সত্যিকার অর্থে চাপে পড়ে যায় ভারত। পাকিস্তানের ওই বাঁ-হাতি বোলার মাত্র ২৮ বল খরচ করে ১৬ রানের বিপরীতে দখল করেন তিনটি মূল্যবান উইকেট।

প্রথমে ওপেনার রোহিত শর্মাকে এলবিডবিস্নউতে বিদায় করার পর তিনি শূন্য হাতে ফিরিয়ে দেন ওডিআই ক্রিকেটে এই মুহূর্তে বিশ্বসেরা ব্যাটসম্যান বিরাট কোহলিকে। ভারতীয় অধিনায়ক পরে সাংবাদিকদের বলেন, 'তারা এমনভাবে বোলিং করেছে যাতে আমরা ভুল ব্যাটিং করি। এভাবেই তারা আমাদের চাপে ফেলে দেয়।' এদিন পাকিস্তানের হয়ে ক্যারিয়ারের প্রথম ওডিআই সেঞ্চুরি হাকানো বাঁ-হাতি ওপেনার ফখর একাধিকবার ভাগ্যের সহায়তা লাভ করেছেন। অবশ্য বেশ ঝুঁকি নিয়েই তিনি ব্যাটিং করেছেন। হাকিয়েছেন দৃষ্টিনন্দন ছয়ের মার। যার ফলে আজহার আলীকে সঙ্গী করে প্রথম উইকেট জুটিতে পাকিস্তানকে ১২৮ রানে পেঁৗছে দেন তিনি। কোহলি বলেন, 'যখন একজন খেলোয়াড় দিনটিকে নিজের করে পায় তখন তাদের থামানো সত্যিকার অর্থেই কঠিন হয়ে পড়ে। কারণ তার নেয়া শটের সত্তর ভাগই ছিল খুবই ঝুঁকিপূর্ণ। তারা সবাই এরকম ঝুঁকি নিয়েই খেলেছেন। একজন অধিনায়ক বা একজন বোলার যখন এমন কিছু ঘটতে দেখেন তখন তাকে অবশ্যই মেনে নিতে হবে যে এ ছেলেরা নিজেদের দিনে যে কোন অসাধ্যই সাধন করতে পারবে। আমরা সঠিক জায়গায় বল করে তাদের প্রতিহত করার চেষ্টা করেছি। ভেবেছি এতে তাদের অস্বস্তিতে ফেলা যাবে। কিন্তু আমরা কিছুই করতে পারিনি। ব্যাটিং থেকে বড় পার্টনারশিপও আদায় করতে পারিনি।'

পরাজয়ের পরও কোহলি বলেন, 'এ পরাজয়ের পরও আমরা গৌরব করার মতো অনেক কিছু অর্জন করেছি। আমরা মাথা উঁচু করেই এখান থেকে যাচ্ছি। দলকে ফাইনালে পেঁৗছে দেয়ার পথে অসাধারণ দক্ষতা প্রদর্শনের কৃতিত্ব দলের সব সদস্যের। ফাইনাল ছাড়া বাকি ম্যাচগুলোতে দলের সব বিভাগ অসাধারণ নৈপুণ্য প্রদর্শন করেছে।' 'দিন শেষে প্রতিপক্ষ দলের দক্ষতার বিষয়টিকেও মানতে হবে হবে'- বলে উল্লেখ করেন ভারতীয় অধি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি ফাইনালের পরে টিভিতে ভারত অধিনায়ক বলেন, ''আমরা আজ সব বিভাগেই হেরে গিয়েছি পাকিস্তানের কাছে। এজন্যই কোন টিমকে হালকাভাবে নেয়ার প্রশ্ন থাকে না।'' কোহালি বলেন, 'পাকিস্তানকে অভিনন্দন জানাচ্ছি। ওদের কাছে একটা চমকপ্রদ টুর্নামেন্ট গেল এটা। যেভাবে ওরা ঘুরে দাঁড়াল, তাতে বোঝা যাচ্ছে ওদের ক্রিকেটে কত প্রতিভা আছে।'

নিজেদের পারফরম্যান্স নিয়ে বিরাট বলেন, 'আমরা আর কয়েকটা উইকেট তোলার বল করতে পারলে ভালো হতো। আমরা চেষ্টা করেছিলাম, কিন্তু হলো না। বল হাতেও ওরা দারুণ আগ্রাসী ছিল।' বুমরাহ-র নো বল নিয়ে বলেন? যে বলে ফখর ৩ রানে আউট হয়ে জীবন পান। 'মাঝে মাঝে ছোট ছোট ভুল বিরাট হয়ে যায়। তবে এটা মনে রাখবেন, আমরা একটা ক্রিকেট ম্যাচ হেরেছি। আমাদের এগিয়ে যেতে হবে।'

পাকিস্তানের অধিনায়ক সারফারাজ আহমেদ : 'গ্রুপে ভারতের কাছে হেরে যাওয়ার পরে আমি ছেলেদের বলেছিলাম, টুর্নামেন্ট কিন্তু শেষ হয়ে যায়নি। আমাদের প্রতিটা ম্যাচ এবার নকআউট ধরে খেলতে হবে। তারপর থেকে আমরা সব ম্যাচে ভালো খেলেছি। ফাইনালেও দারুণ খেলে চ্যাম্পিয়ন হলাম।' ফখরকে নিয়ে তার অধিনায়ক বলছেন, 'ফখর দুর্দান্ত প্লেয়ার। এটা ওর প্রথম আইসিসি টুর্নামেন্ট ছিল। আর সেখানেই ও এত ভালো খেলে দিল। পাকিস্তান ক্রিকেটের সম্পদ হয়ে উঠবে ও।' বোলারদের কথাও বলেন তিনি। 'আমির, জুনায়েদ, হাসান, হাফিজ সবাই খুব ভালো বল করে। আমাদের তরুণ টিম। এ জয়ের পিছনে সবার কৃতিত্ব,' বলেন সারফারাজ নায়ক। বাসস/এএফপি।

খবরটি পঠিত হয়েছে ১০১ বার
font
font
সর্বাধিক পঠিত
আজকের ভিউ
পুরোন সংখ্যা
Click Here
সম্পাদক - আলতামাশ কবির । ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক - খন্দকার মুনীরুজ্জামান । ব্যবস্থাপনা সম্পাদক - কাশেম হুমায়ুন ।
সম্পাদক কর্তৃক দি সংবাদ লিমিটেড -এর পক্ষে ৮৭, বিজয়নগর, ঢাকা থেকে মুদ্রিত এবং প্রকাশিত।
কার্যালয় : ৩৬, পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০। ফোন : ৯৫৬৭৫৫৭, ৯৫৫৭৩৯১। কমার্শিয়াল ম্যানেজার : ৭১৭০৭৩৮
ফ্যাক্স : ৯৫৫৮৯০০ । ই-মেইল : sangbaddesk@gmail.com
Copyright thedailysangbad © 2017 Developed By : orangebd.com.
close