logo

orangebd logo
তিনি নিজেই তাঁর সাম্প্রতিক একটি বইয়ের ভূমিকায় লিখেছেন, "আদর্শ নিয়ে আমাদের সমস্যা অনেক। আমরা সহজেই আদর্শের প্রতি আকৃষ্ট হই কিন্তু সহজভাবে তা জীবনে ধরে রাখতে পারি না। সেখানে নানা চাপ, নানা টান কাজ করে। দীর্ঘ জীবনে মানুষ বদলায়, তার চিন্তাভাবনা বদলায়, দৃষ্টিভঙ্গি বদলায়; যেমন ঘটনার চাপে তেমনি নানা আকর্ষণে বা...বিস্তারিত
ওবায়েদ আকাশ : এই মুহূর্তে আপনি আমাদের সাহিত্যিকদের মধ্যে অগ্রগণ্য, বর্ষিয়ান। একটি জীবন লেখালেখির সঙ্গে কাটিয়ে দিলেন। সাহিত্যের বিভিন্ন শাখায় লিখেছেন। সব লেখকই নিজেকে কবি পরিচয় দিতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন, এমনকি রবীন্দ্রনাথও... আহমদ রফিক : হ্যাঁ, রবীন্দ্রনাথ তো বলতেনই, কবিতা আমার প্রিয়...বিস্তারিত
বাংলা সাহিত্যে এ যাবৎ প্রগতি চেতনায় অনুপ্রাণিত যত কাব্যগ্রন্থ রচিত তার মধ্যে 'বিপ্লব ফেরারী, তবু' অন্যতম। বিশের দশক থেকে এ যাবৎ এ ধারার যত কবিতা, পাকিস্তান পরবর্তী সময়ে তৎকালীন পূর্ব-বাংলায় সে ধারাবাহিকতা ধরে রেখেছিলেন প্রধানত কবি আহসান হাবীব এবং আহমদ...বিস্তারিত
বাংলাদেশের জনগণ আজ যে সঙ্কটে নিমজ্জিত, তা থেকে বিনা-প্রস্তুতিতে, খুব সহজে স্বতঃস্ফূর্ত ধারায় উদ্ধার লাভের আশা করছেন প্রায় সবাই। নৈতিক পতনশীলতা ও সামাজিক অবক্ষয় নিয়ে গভীর কোনো চিন্তাই নেই। সঙ্কটের ব্যাপকতা ও গভীরতা উপলব্ধি করছেন না প্রায় কেউই। ইতিহাসের দিক...বিস্তারিত
ষাটের দশকের দ্বিতীয়ার্ধে ঢাকায় প্রথম দেখা খালিদের সাথে। এসএসসি পাস করে আমি আসি রংপুর থেকে আর খালিদ সিলেট থেকে। চারুকলা মহাবিদ্যালয়ে আমরা ভর্তি হয়েছিলাম ৬৪-৬৫ শিক্ষাবর্ষে_ তখন চারুকলায় ডিগ্রি কোর্স চালু ছিল। ১৯৪৮তে জয়নুল আবেদিন প্রতিষ্ঠিত দেশের প্রথম চারুকলা বিদ্যায়তনে...বিস্তারিত
কিছু জাগরণ মৃত্যুর চেয়েও নীরবশীতের ভোরের মতো শান্ত অর্ঘ্যপাত্র...লাভবার্ড জুটি খাঁচাবন্দি ছিল দীর্ঘদিন বারান্দায়টাইটান থেমিসের মতো খাঁচা বনাম প্রেমসময় গড়িয়ে নেয়_ জীবনের দীর্ঘ বসবাসপ্রশ্ন জাগে_ কেন তারা নিঃসন্তানবন্দিত্ব কি বাধাগ্রস্ত করে আমুদে সঙ্গম...মেঘের ওপাশে চাঁদ, গুবরেপোকার মতোমেঘমাটি খুঁড়ছে, আর সলজ্জ...বিস্তারিত
তুমি বললে_দিন রাত কত দীর্ঘ হয়ে গেছেবিরহের প্রহর আরো দীর্ঘতম,সব পথ কত অাঁকাবাঁকাকিছু যায় না দেখা,শুধু মনে হয়পথটা অনেক দীর্ঘজানি না কোন প্রান্তে গেছে মিশে?আমি ভাবলামআসলে পথ গেছে কি মিশে?না কি পথ হারিয়েছে পথতাই হচ্ছে দীর্ঘ থেকে দীর্ঘতম!...বিস্তারিত
ছোটোকালে মনে মনে স্থির জেনেছিলাম যে'যত দোষ নন্দ ঘোষ' একটা সহজ বাক্য!এই আপ্তবাক্য আপাতদৃষ্টিতে যতটা সরল মনে হয়ততটাই সহজতা নেই অন্তর্গত অর্থের গভীরে'দোষ' আর 'ঘোষ' এইদুই শব্দের সম্পর্ক পাতানোর জন্যকোনো কবি কোন কালে অন্ত্যানুপ্রাসের মতোমিলমিশ করে করে লিখলেনঘোষের দোষের কাহিনিটা!ইদানীং...বিস্তারিত
কথা হচ্ছিল জীবন আর তারঅন্তর্গত যাবতীয় মোহন ক্ষরণ নিয়ে।আমি আপনার হাত ধরতে প্রস্তুতঅথচ আপনি নন।কত অনায়াসে আকাশের সীমানায়গর্জে ওঠে জিহ্বার ক্রোধকত সহজে আমরা অস্বীকার করি মহত্তম সত্য।যখনি বাড়িয়ে হাত প্রায় ছুঁয়ে ফেলিআকাশের নিবিড় অন্তর এবং তখনিসামনে দাঁড়ায় এসে চার্বাক অথবা...বিস্তারিত
প্রতিদিন আয়নাকে নিজ প্রতিবিম্ব উপহার দেইআর আয়না ফিরিয়ে দেয় বয়বৃদ্ধ বিধ্বস্ত আমাকেঅভিযোগহীন সময় ঝুলে থাকে কাঁচাপাকা দাড়িতেচামড়ার ভাঁজে ভাঁজে অভিজ্ঞতার ছাপ লুকানোবহুদিন পরে পুনরায় যোগাযোগপ্রেমহীন সম্পর্কের মাঝে পুলকিত দাগ কাটেরোমাঞ্চকর ঘটনাবলিরাতের গহীনে কেটে দিয়ে সুদৃঢ় শেকড়চুপি চুপি চলে যায় সুখ...বিস্তারিত
আলোতে কিছুই দেখি না তাই অন্ধ হলামঅতঃপর আগুনের শরীরে দেখি মস্তবিরাণভূমিতার দু'পাড়ে আমার দুই মাতামহীর মাতাল নাতিরাহুদুবুদু খেলায় মেতে ওঠে প্রতি পূর্ণিমায়।এ খেলায় বলি হয় ঈশ্বরের প্রচুর প্রতিনিধি_কিন্তু কবরকে আমার ক্ষুধার্ত শেয়াল মনে হয়।অথচ এখন কবরেই ঢুকতে ভীষণ ইচ্ছে করছে!কারণ,...বিস্তারিত
font
font
সর্বাধিক পঠিত
আজকের ভিউ
পুরোন সংখ্যা
Click Here
সম্পাদক - আলতামাশ কবির । ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক - খন্দকার মুনীরুজ্জামান । ব্যবস্থাপনা সম্পাদক - কাশেম হুমায়ুন ।
সম্পাদক কর্তৃক দি সংবাদ লিমিটেড -এর পক্ষে ৮৭, বিজয়নগর, ঢাকা থেকে মুদ্রিত এবং প্রকাশিত।
কার্যালয় : ৩৬, পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০। ফোন : ৯৫৬৭৫৫৭, ৯৫৫৭৩৯১। কমার্শিয়াল ম্যানেজার : ৭১৭০৭৩৮
ফ্যাক্স : ৯৫৫৮৯০০ । ই-মেইল : sangbaddesk@gmail.com
Copyright thedailysangbad © 2017 Developed By : orangebd.com.
close